অনলাইন পরামর্শ উপলব্ধ
এখনই বুক করুন

অনলাইন পরামর্শ উপলব্ধ
এখনই বুক করুন

ভারতে চুলের পিআরপি (PRP) চিকিৎসার খরচ ও সফলতার হার কী?


Speak To Our Expert

Please enter your contact information.

প্লেটলেট-রিচ প্লাজমা থেরাপি (platelet-rich plasma therapy) বা পিআরপি (PRP), বয়সজনিত চুল পড়া, চুল পাতলা হয়ে যাওয়া বা হেয়ারলাইন (hairline) পিছিয়ে যাওয়ার সমস্যার চিকিৎসার জন্য, একটি জনপ্রিয় আধুনিক ও কার্যকরী পদ্ধতি যাতে স্বাভাবিকভাবে নতুন করে চুল গজায়। এই আর্টিকলে আমরা আপনাদের এর প্রক্রিয়া, খরচ ও এর থেকে কিরকম ফল আশা করতে পারেন তার সম্পর্কে জানাব।

 

চুলের পিআরপি চিকিৎসার ব্যাপারে প্রয়োজনীয় তথ্য

 

  • কোথায় পাওয়া যায়আপনি বিভিন্ন হেয়ার ক্লিনিকে (hair clinic) এই চিকিৎসা করাতে পাবেন।
  • যন্ত্রণাএটি মোটামুটি যন্ত্রণামুক্ত এবং খুব সামান্য ইনভেসিভ (invasive) একটি প্রক্রিয়া।
  • ঝুঁকিপিআরপি একটি নিরাপদ প্রক্রিয়া; এতে রক্তপাত, অ্যালার্জি বা সংক্রমণ জাতীয় কোন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার ভয় নেই।
  • সময়সাপেক্ষতা চুলের বিশেষজ্ঞরা এক মাসের ব্যবধানে করা ৬-৮টি সেশনের (session) পরামর্শ দেন। প্রতিটি সেশনে এক থেকে দেড় ঘন্টা মত সময় লাগে।
  • কে উপযুক্তঅ্যান্ড্রোজেনেটিক অ্যালোপেশিয়া (androgenetic alopecia) বা বয়সজনিত চুল পড়ার সমস্যায় ভুগছে এমন যে কোন ব্যক্তি পিআরপি করাতে পারেন। আপনার চুলের বিশেষজ্ঞ আপনার মেডিক্যাল হিস্ট্রি (medical history) নিয়ে, আপনার ট্রাইকোস্কোপি (trichoscopy) পরীক্ষা করার পর যদি এই রোগটি চিহ্নিত করেন, তবে তিনি আপনাকে পিআরপি চিকিৎসার পরামর্শ দিতে পারেন। এটি করাতে হলে আপনার ১৮ বছর বা তার বেশি বয়স হওয়া প্রয়োজন।
  • পরীক্ষা ওষুধপত্রকিছু প্রয়োজনীয় রক্ত পরীক্ষা করাতে হবে, এবং আপনার চর্মবিশেষজ্ঞ এর সঙ্গে কিছু ওষুধপত্র ব্যবহারের নির্দেশও দিতে পারেন।
  • ফলাফলপ্রথম সেশন করানোর তিন মাসের মাথায় আপনি ফল দেখতে পাবেন।

 

চুলের পিআরপি চিকিৎসার প্রক্রিয়া

 

চুলের পিআরপি চিকিৎসার নিম্নলিখিত চারটি ধাপ আছে-

 

[প্লেটলেট রিচ প্লাজমা (পিআরপি) চিকিৎসা

স্বাভাবিকভাবে নতুন চুল গজানোর একটি নন-ইনভেসিভ চিকিৎসা

 

-আপনার হাত থেকে রক্ত নেওয়া

-প্লাজমাকে রক্ত থেকে আলাদা করা

-প্লাজমাতে থাকা প্লেটলেটলেটগুলি সক্রিয় করা

-উদ্দিষ্ট জায়গায় পিআরপি ইনজেকশন দেওয়া]

 

. রক্তের নমুনা সংগ্রহ করা: পিআরপি চিকিৎসার প্রথম ধাপে আপনার ডাক্তার আপনার থেকে ২০ মিলি রক্ত নেবেন।

 

. প্লেটলেটকে আলাদা করা: চর্মবিশেষজ্ঞরা সেন্ট্রিফিউজ (centrifuge) প্রযুক্তি ব্যবহার করে প্লেটলেটকে রক্ত থেকে আলাদা করেন। ডাবল স্পিন (double spin) প্রক্রিয়ার জন্য প্লেটলেট সঠিক পরিমাণে একত্র করা সম্ভব হয়। এই প্লেটলেটগুলিতে অনেক গ্রোথ ফ্যাক্টর (growth factor) থাকে।

 

.রক্ত থেকে পিআরপি নিষ্কাশিত করে তাকে সক্রিয় করা: ডাক্তাররা টিউবে জমা হওয়া প্লেটলেট পুওর প্লাজমা/পিপিপি (platelet poor plasma-PPP) ও লোহিত কণিকা (RBC) থেকে প্লেটলেট রিচ প্লাজমা (PRP) নিষ্কাশন করেন। মাথার ত্বকে ইনজেকশন দেওয়ার আগে চুলের বিশেষজ্ঞরা একটি সক্রিয়কারী দ্রব্য (activating agent) দিয়ে প্লাজমার গ্রোথ ফ্যাক্টরগুলিকে সক্রিয় করে নেন।

 

. উদ্দিষ্ট স্থানে ইনজেকশন দিয়ে পিআরপি ছড়িয়ে দেওয়া: শেষ ধাপে চর্মবিশেষজ্ঞরা রক্ত থেকে নিষ্কাশিত পিআরপি নিরাপদভাবে ছোট ছোট ছুঁচ দিয়ে মাথার সংশ্লিষ্ট ত্বকে ইনজেকশন দিয়ে দেন। পিআরপি ইনজেকশন দেওয়ার আগে আপনার চর্মবিশেষজ্ঞ স্ক্যাল্পের (scalp) ধার বরাবর লোকাল অ্যানাস্থেসিয়া (local anesthesia) দিয়ে দেবেন যাতে আপনার কোন ব্যথা না লাগে।

 

#নতুন চুল গজানোর পিআরপি চিকিৎসা একটি নিরাপদ নন-সার্জিক্যাল (non-surgical) চিকিৎসা যা চুল পড়া কমাতে খুবই কার্যকর। আরও জানতে এই ভিডিওটি দেখুন#

 

 

পিআরপি প্রক্রিয়ার ব্যাপারে অবগত হওয়ার পর এবার এর খরচ সম্পর্কে জেনে নিন।

 

ভারতে চুল পড়ার পিআরপি চিকিৎসার খরচ

 

ভারতে বিভিন্ন হেয়ার ক্লিনিকে পিআরপি (PRP) চুলের চিকিৎসার মোটামুটি খরচ পড়ে ৪,৫০০-১৫,০০০ টাকা প্রতি সেশন। এই মূল্য বেশ কয়েকটি জিনিসের উপর নির্ভর করে, যেমন:

 

  • চর্মবিশেষজ্ঞর অভিজ্ঞতা বা ক্লিনিকের খ্যাতি
  • প্রক্রিয়ায় ব্যবহৃত উপকরণের মান
  • কতগুলি সেশনের প্রয়োজন

 

ভারতে চুলের পিআরপি চিকিৎসার প্রতি সেশনের গড়পড়তা খরচ

 

 

শহর সর্বনিম্ন সর্বোচ্চ
হায়দ্রাবাদ ৫,০০০ টাকা ১২,০০০ টাকা
ব্যাঙ্গালোর ৫,৩০০ টাকা ১৩,৫০০ টাকা
চেন্নাই ৪,৮০০ টাকা ১২,৫০০ টাকা
পুনে ৫,০০০ টাকা ১৪,০০০ টাকা
কলকাতা ৫,২৫০ টাকা ১৩,০০০ টাকা
কোচি ৫,০০০ টাকা ১২,০০০ টাকা
ভাইজ্যাগ ৪,৭০০ টাকা ১১,৫০০ টাকা
মুম্বাই ৪,৫০০ টাকা ১৪,০০০ টাকা
দিল্লি ৪,০০০ টাকা ১৫,০০০ টাকা

 

*ভারতের বড় শহরগুলিতে বিভিন্ন নামকরা চুলের পিআরপি চিকিৎসা কেন্দ্রের মূল্যগুলির উপর ভিত্তি করে।

 

চুলের পিআরপি চিকিৎসার সফলতার হার মূল্যায়ন

 

বিশ্বের বহু গবেষণায় প্রমাণিত হয়েছে যে পিআরপি চুল পড়া, চুল পাতলা হওয়া এবং বয়সজনিত টাক পড়া আটকানোর জন্য সবচেয়ে সফল নন-সার্জিক্যাল চিকিৎসাপদ্ধতির মধ্যে একটি। এটি চুলের বৃদ্ধির সময় বাড়ায়, চুল পড়া কমায় এবং পাতলা হওয়া চুল আবার ঘন করে তুলে মাথার ফাঁকা হয়ে যাওয়া ত্বককে স্বাভাবিকভাবে গজানো নতুন চুলে ঢেকে দেয়। প্রথমদিকের সেশনগুলির পর আপনি নিজের চুল পড়া কমেছে বলে বুঝতে পারবেন। তৃতীয় সেশনের পর চিকিৎসার ফলে স্পষ্ট নতুন চুল গজানোর লক্ষণ দেখতে পাবেন।

 

আপনার চুল পড়ার মাত্রা এবং চুল পাতলা হয়ে যাওয়ার পরিমাণের উপর নির্ভর করে আপনার চর্মবিশেষজ্ঞ ঠিক করবেন আপনার কটি সেশন পিআরপির প্রয়োজন; ফলাফল বজায় রাখার জন্য মেন্টেনেন্স (maintenance) সেশন লাগবে কিনা, এবং সঙ্গে লাগানোর ও খাওয়ার প্রয়োজনীয় ওষুধপত্রের নির্দেশ দেবেন।

 

২০১৫ সালে বয়সজনিত চুল পড়ার সমস্যায় ভোগা ইতালীয় পুরুষদের উপর করা একটি গবেষণার ফলাফল অনুযায়ী পিআরপি চিকিৎসা স্ক্যাল্পের সংশ্লিষ্ট স্থানের চুলের ঘনত্ব বাড়াতে পেরেছিল; তিন মাস বাদে স্পষ্ট ভাবে এই ফল দেখা গিয়েছিল। এই চিকিৎসা সহজ, নিরাপদ ও খরচের দিক দিয়ে সাশ্রয়কর। তাই ডাক্তাররা একে মহিলা ও পুরুষ উভয়েরই বয়সজনিত চুল পড়ার সমস্যার জন্য উপযুক্ত চিকিৎসা বলে মনে করেন। তবে এর সঙ্গে কিছু ওষুধপত্র ব্যবহার করা প্রয়োজন।

 

এর আগে পরের ফলাফল কেমন?

 

নিচের আগে ও পরের ছবিটি দেখলে এই নন-সার্জিক্যাল চুল গজানোর চিকিৎসার ফলাফল সম্পর্কে ধারণা করতে পারবেন। নীচে দৃশ্যমান পিআরপি প্রাথমিক ভাবে টাক পড়া আটকে নতুন চুল গজাতে পারে। তবে চূড়ান্ত ফলাফল সবার একরকম নাও হতে পারে।

 

 

আগে-পরে

*ফলাফল ব্যক্তিবিশেষে ভিন্ন হতে পারে

 

পিআরপি চিকিৎসা কার করা উচিত নয়?

 

পিআরপি চিকিৎসা নিম্নলিখিত ব্যক্তিদের জন্য উপযুক্ত নয়-

 

  • যে খুব বেশি ধূমপান করে
  • কিছু বিশেষ অসুখ যেমন প্লেটলেট ডিসফাংশন সিনড্রোম (platelet dysfunction syndromes), বিভিন্ন কারণে প্লেটলেটের সংখ্যা কমে যাওয়া (thrombocytopenias), ফাইব্রিনোজেনের অভাব (hypofibrinogenemia), রক্তের অল্পতা বা আধিক্য (hemodynamic instability), সেপসিস (sepsis), তীব্র কোন সংক্রমণ (acute infections), দীর্ঘস্থায়ী লিভারের সমস্যা (chronic liver disease) ও ক্যান্সার (cancer) থাকলে পিআরপি করানো উচিত না। রক্ত পাতলা করার ওষুধ বা চিকিৎসা (anti coagulation therapy, blood thinners) করালেও পিআরপি এড়িয়ে চলা উচিত।

 

চুল তাড়াতাড়ি পাতলা হয়ে যাওয়া এবং টাক পড়া আটকে মাথায় নতুন চুল গজানোর জন্য পিআরপি সবচেয়ে নিরাপদ নন-সার্জিক্যাল চিকিৎসা। আপনি যদি খেয়াল করে থাকেন যে আপনার হেয়ারলাইন (hairline) পিছিয়ে যাচ্ছে ও বেশি চুল পড়ছে, তবে আজকেই একজন অভিজ্ঞ চুলের ডাক্তারের পরামর্শ নিন এবং পিআরপি চিকিৎসা আপনার প্রয়োজন কিনা খোঁজ করুন।

 

UPTO 50% Off on Laser Hair Removal
UPTO 50% Off on Laser Hair Removal

Was this article helpful?

About The Author


Subscribe to Newsletter

Expert guide to flawless skin and nourished hair from our dermatologists!